https://www.verbling.com/find-teachers?price%5B%5D=5&price%5B%5D=80&sort=magic&language=bn
ভাল website
সুধীরের বলা ফুড ব্লগ

ভ্রমণ

অভ্র কি-বোর্ড টা সত্যি ভাল। ওই ইউনিকোড ফন্ট টাইপ করতে করতে আমার মাথা খারাপ হয়ে গিয়েছিল। আমি আগে এরকম একটা সফটওয়্যার ব্যবহার করেছি, ওটার নাম ছিল 'আইলিপ্‌'। আমরা যখন প্রথম ইন্টারনেট নিয়েছিলাম তখন ভি এস এন এল (ভারত সঞ্চার নিগম লিমিটেড)ওটা ফ্রী দিয়েছিল। কত বছর যে বাংলা লিখিনি তাই ভাবছি। নিজে হাতে, কাগজে লিখলে সবসমই সন্দেহ হয় যে এই বুঝি ভুল লিখছি। এইটুকু বাংলা লিখেই পুরোনো কনফিডেন্স ফিরে আসছে। ঃ)এবার থেকে ভাবছি নেট এ বাঙ্গালি বন্ধুদের সাথে বাংলাই লেখলেখি করবো। তবে অসুবিধেটা হল অনেকের কম্পুটরেই বাংলা ফন্ট ঠিক করে দেখা যায়না। মগা এখন মাস্টার ডিগ্রির প্রবেশিকা পরিক্ষা নিয়ে বেস্ত। যদিও আজকে আমি সকালে ওকে ফোন করে অনেক জ্বালিয়েছি। আর এখন তো পাঁচুর  রমরমা অবস্থা।ঃ) সরস্বতী পুজো, ভ্যালেন্টাইন্স ডে - এইসব নিয়ে বেস্ত। তোমার এই ব্লগ্‌-এ গালাগালি দেওয়া যাবে? যদি অনুমতি দাও তবে মগাকে কিছু গালাগালি দেব ঃ-) । আমাদের নভেম্বর এর বেরানটা ছিল পাঁচদিনের। মুল উদ্দেশ্য ছিল আমাদের এক রুম-মেট্‌ এর বিয়ে। তবে বিয়েতে আমরা কএক ঘন্টা মাত্র ছিলাম। আমাদের বেড়ানোর নক্সাটা ছিল অনেকটা মেল ট্রেনের রুটের মত। পুনা-মুম্বই-দিল্লী-গুরগাঁও-নৈনীতাল-রাণীক্ষেত-নৈনীতাল-হরিদ্বার-হৃষীকেশ-হরিদ্বার-সাহারানপুর-আম্বালা-দিল্লী। যার বিয়ে ছিল সে একজন পাঞ্জাবি সর্দার। সর্দার এর বাড়ী হল হরিদ্বারে। বিয়েটা ছিল আম্বালায়। আমাদের পুনা থেকে মোট তিনজনের যাওয়ার কথা ছিল- আমি, ললিত আর রাজর্ষী। ললিত শেষমুহূর্তে যাওয়ার পরিকল্পনা ত্যাগ করায় আমরা অভিনভ কে আমাদের সাথে যাওয়ার জন্য রাজি করাই। ছাব্বিশে নভেম্বর, রবিবার, আমি আর অভিনভ একটা শেয়ার এর ফোর্ড-আইকন ভাড়া করে মুম্বই-এর দিকে রওনা দি। রাজর্ষী একদিন আগেই, মানে শনিবার মুম্বই চলে গেছিল। রবিবার ওর একটা পরীক্ষা ছিল-Indian Institute Of Foreign Trade এর admission test। পঁচিশ তারিখ ছিল সর্দারের জন্মদিন। রাত বারটায় কেক কাটা দিয়ে পার্টি শুরু, তারপর আর রাতে ঘুমানোর সময় পাইনি। হুইস্কির পেগ এর সাথে সাথে ইউনিভার্সিটির অ্যাপ্লিকেসন প্যাকেট রেডি করতে করতে কখন সূর্য উঠে গেছে খেয়ালই করিনি। সকালে অ্যাপ্লিকেসন প্যাকেটগুলো ডাকঘরে জমা করতে দেওয়ার জন্য আমার এক মেসোর কাছে রেখে দিয়ে অভিনভকে বিছানা থেকে টেনে তুলে একটা অটো-রিক্সায় করে রেল স্টেশন এর দিকে দৌড় লাগাই। (নিচে পুনার অটো-রিক্সার একটা ছবি পাঠালাম, ভিতরে কারা বসে আছে দেখ !!)

Brangelina পুনা রেল স্টেশন এর কাছ থেকে মুম্বই যাওয়ার বাস অথবা শেয়ার ক্যাব পাওয়া যায়। যদিও বাসে যাওয়াটা সস্তা আর অনেক আরামদায়ক হত কিন্তু সময় অনেক বেশি লাগত। আমাদের হাতে বেশি সময় ছিলনা, মুম্বই থেকে দিল্লী যাওয়ার রেলগাড়ী ধরার ছিল ওইদিন বিকেলে। মুম্বই-পুনা এক্সপ্রেস ওয়েটা খুব সুন্দর। বর্ষাকালে রাস্তার দুদিকে সবুজ পাহার আর অনেক ছোট ছোট পাহড়ী ঝর্ণা দেখা যায়। Dscn2556_2 লোনাভালার কাছে রাস্তার মধ্যে মেঘ চলে আসে।বছরের বাকি সময় অবশ্য দৃশ্যটা(spelling?)একেবারে অন্য-রুক্ষ লাল পাথুরে পাহাড়। রাস্তায় আমি ঘুমিয়ে পরেছিলাম, ঘুম ভাঙ্গল লোনাভালার কাছে একটা সুরঙ্গর মধ্যে। [ উপরের ছবিটা ' Express Way'-এর। এই জায়গাটাতে রাস্তাটা সুরঙ্গর মধ্যে দিয়ে পাহাড়টাকে ফুঁরে উল্টদিকে চলে গেছে]
(বাকিটা পরে লিখব...)

Comments