https://www.verbling.com/find-teachers?price%5B%5D=5&price%5B%5D=80&sort=magic&language=bn

« February 2007 | Main | April 2007 »

PROPS TO THE FIRST-YEARS.

What can I say. That film was $%!#*&^@ AMAZING! It far exceeded my expectations, and I, as well as the rest of the room (thank God for those yellow subtitles), were laughing hard, I mean really hard, from start to finish. You guys did a terrific job.

I think I've watched the "Bangla Matrix" clip about 20 times, and I've showed it off to dozens of friends and relatives since first watching it. But as soon as Celeste makes your film digital, rest assured that I'll be obsessed with this film clip twice as much as I was with the Bangla Matrix clip.... that's how much I loved it, and I think I could speak for everyone else here too when I say that.

The idea of Celeste conducting research on a Bengali version of the Real World in Ann Arbor was very creative and integrated. I was very impressed with each of your acting skills. Sangita deftly portrayed a ditsy Bengali sorority-girl, even though she's not like that in real life. Munnibur was hysterical when he was talking about why he came to America, spiking up his hair in front of the mirror, and when he was pimping out Wasim. The ironic reversal of cultural heritage also made it entertaining; how Rachel and Haley competed to be the best Bengali housewife, whereas Sangita was all about her cell phone, being pretty, and US Weekly. Although Daniel wasn't one of the main characters, the whole INS thing fitted in perfectly for the plot and I cracked up when you had that cheesy stand-off with Haley. And the dance scenes with the Hindi music in the background.... funny stuff.

And finally... WASIM. The star of the show. WASIM. Words can't describe your superb acting and how unintentionally hilarious your character was. The part where you dart a stick into the river to catch fish.... priceless. Great job, man. I'm gonna name my first-born after you.

You guys all demonstrated some very impressive comedy skills, or whoever was responsible for most of the script. You guys struck a fine balance between the more serious parts of the plot with the hilarity and irony, and you maintained this rhythm all throughout. I think I'm getting jealous. If any of you decide to pursue comedy writing or stand-up later in life (even if it's not as awesome as law school, public policy, or history), do let us know ahead of time.... the world could use another Russell Peters.

Further testimony of how much I loved your work is the fact that I couldn't help but expressing my thoughts about your film on the blog right now.... 1:07am on a Thursday night, while all my senior friends are still out partying at Rick's and Scorekeepers.

If you're reading this and you enjoyed the film as much as I did, please comment on this thread right now to show your appreciation as well, so that hopefully we can brown nose Mandira into giving each of them an A+ for this semester. They worked very hard on this film, and they deserve it.

Can't wait till Celeste puts it on Google Video. I'm predicting that it'll have at least 50,000 views, a week after releasing it. You guys are gonna be famous. Make sure to give me your autographs, pretty please.

~ President Sayem Babu


My Experience in Bangla Class

I first thought about taking Bangla because a close friend of mine is from Bangladesh, and most of her family does not speak much English. I wanted to learn to speak to them in Bengali, but I didn’t think I would have room in my schedule to take Bangla class. However, while registering for classes, all the classes in my major that I had wanted to take filled up before I could register.  At the last minute, I thought of all the classes that I might want to take, even though they didn’t fulfill any requirements, and I registered for Bangla.

In many ways, I now see that as a blessing, even though things didn’t go according to my plan. To be honest, I was very scared at first to take the class, since I didn’t have any prior experience with the language. However, in Bangla class, I have not only learned the language better than I did in other language classes, but I have had so much fun in the process that it doesn’t feel overwhelming at all. Instead, going to class is to me like going to visit my friends. I still learn about Bengali language and culture, but in a way very different from most classes. Through Bangla class, I experience the culture and language first-hand as I learn to speak with my friends there and we talk about our backgrounds, visits to India, or else whatever comes to Mandiradi’s mind, lol;-) 

I am so grateful that I ended up in this class, in spite of what I had thought before I took it.  Thank you so much for all you guys do to make this such an awesome program!

Rachel


Journal: Intro to My Character in Real World 38: Ann Arbor

আমি জিবনে আগে খালি একবার বাড়ি থেকে এত দূর এসেছি যখন আমার আঠেরো বছর বয়স ছিল।  আমি হরিণ শিকার করছিলাম।  আমি ও হরিণের পেছনে তিন দিন ধরে ছোটলাম, কিন্তু শেশে সে আমার থেকে পালাল।  তারপর আমার মনে আছে না কি হল।  আমার গ্রামের লোক আমাকে মাঠে পেয়েছে, তিন কিলোমিটার গ্রাম থেকে। 


Who am I?

আমি কে?

আমি হল স্পাইডার-ম্যা... ধ্যাত!

যখনই আমি জানিনা কি লিখব, তখনই আমি সুরু করি আবল-তাবল নান-সেন্স বলতে। ভাবি, আমার চিন্তা ভাবনা যখন সবসময়ই নান-সেন্স, তালে এরকম ভাবে বললে হয়তো কিছু না কিছু বেরিয়ে পরবে যেটা মানুষ বুঝতে পারবে। ঠিক আছে, আবার শুরু করি।

বাংলাদেশ আমার জন্মভুমি, যেখানে আমার জ্বিবনের প্রথম ৯ বছর কাটিয়েছি। তারপরথেকে আমি এই এন-আরবরের আশ-পাশেই বশবাশ করেছি। এর মদ্ধে কএকবার কানাডায় গিয়েছিলাম, আর ১ বছর ডেট্রয়েটে থেকেছিলাম একা-একা।

কল্পনা করুন একটি শান্ত, হাশি-খুশি কলেজের ছাত্রি, পড়া-শোনা পছন্দ করে, বই বুকের কাছে ধরে ধরে হাটছে। এখন মনে করুন একটি ভারি পাঁজি ছেলে, সেই মেয়েটিকে ল্যাং মেরে দিচ্ছে। আমি হল ওদের বাঁদিকে, বেশ দুরেই বলা যায়, দেওয়ালের কোণায় হেলান দিয়ে ল্যাপটপের স্ক্রিনে নাক ডুবিয়ে আছি এমন মনজগ দিয়ে যে ওই মেয়েটাকে পরে যেতে দেখলামও না, শুনলামও না।

এই সেমিস্টারে হটাৎকরে ২য় বছরের শেশটুকের জন্য বাংলা ক্লাস নিয়েছি কেন? কারন বাংলা লেখা আমার একেবারেই বিচ্ছিরি, আর কলেজের নিয়ম যে একটা ভাষা ৪র্থ সেমিস্টার পর্যন্ত নিতে হয়। ক্লাসটা নিয়ে অবস্য শার্থক। আমি এখন চারজনকে চিনি জারা আমাকে “জংলি দেবি” করে ডাকে আর যা বলি তাই নিয়ে জ্বালাতন করে মজা পায়।

আমার বাবা-মা ছাড়া জিবনের শবচেতে গুরুত্তপুর্ন জিনিশ হলঃ একটি ল্যাপটপ, দুটি ভাই, আর তিন ভাগের এক ভাগ এক গারি। অন্য শব কিছু সময়ে বদল হয়ে যায়।

আমার নাম? ছিমীন শাহরিন খান।

(ছিমীনের উচ্চারন ‘সিমীন।’ ঠিক করে মনে রাখুন। ভুল করে বললে কিন্তু ল্যাং মেরে দিব। ;p )


Magazine Project - Sayem's Interview

ইন্টারভিউ মন্দিরা ভাদুরির সঙ্গে - সায়েম ইসলাম

মান্দিরা ভাদুরি উনিভারসিটি অভ মিসিগ্যানে বাংলা শিখাই। উনি বাংলাজিন, বিকেলে নাস্তা ক্লাব, আর আরো অনেক বাংলা কৃষ্টির অনুস্টান নিয়ে সাংগঠিত করলেন ক্যাম্পাসে আর পুরো মিসিগ্যানে। বাংলাজিনের শ্রেষ্ঠ সাংবাদিক, সায়েম ইসলাম, এই নায়িকার গল্পর উপর ইন্টারভিউ করে এক শূক্রবারে উনার অফিসে ডিপারট্মেন্ট অভ এজান স্টাডিজে।

সায়েম -
মান্দিরা, ধনবাদ বাংলাজিনের সঙ্গে সমাই নেয়া এই ইন্টারভিউয়ের জন্য।
মান্দিরা - কন কষ্ট নেই, সায়েম। প্রতম কি প্রশ্ন করবা?

সায়েম - আমার অনেক প্রশ্ন আছে আপনার জন্য। প্রতম, আমি কৌতুহলী, আপনার ডাক নাম কি?
মান্দিরা - আমার ডাক নাম ড়াক্ষি।
সায়েম - (সায়েম হাসে দস সেকেন্ডের জন্য) আমি এখন আপ্নাকে ক্লাসে প্রতেক দিন ড়াক্ষি ভাদুরি করে ডাকব।
মান্দিরা - আমার বাপমা আমাকে ওটা ডাকে, কিন্তু আমার কেমন অদবুত লাগে। আমার মান্দিরা দেকে আরো ভাল লাগে।
সায়েম - আচা, আমি আপনাকে রাগাব না।  তালে রাক্ষি, সরি, আমি বলতে চেলাম মন্দিরা, আমাকে প্লিজ ফেল করে না, আপনার জন্মদিন কখন?
মান্দিরা - মার্চ ২৪, ১৯৬৬
সায়েম - ওটা এই সামনে উইকেন্ডে আসছে। আপনি নিসচই অনেক মজা করবেন, আপনি কনবার মনে বুরো হতে পারবেন না। আচা, ত্রিতিও প্রস্ন জিঞ্জেস করি, আপনি প্রতম বাংলার শিক্ষিকা কখন হলেন আর কেমন করে হলেন?
মান্দিরা - আমার বানল্গা শিক্ষিকার জন্য সুজগ হল এমেরিকান ইন্সটেটুট অভ ইন্ডিয়েন স্টাডিস কলকতাই। আমি এই সুজগ পেয়েছি আদিতি সেনীর থেখে, আমার ডিরেক্টার আর আগের প্রফেসার, জাদুপুর ঊনিভারসিটিতে যেখানে আমি আমার ম্যাস্টারস সেষ করছিলাম চম্প্যারাটিভ লিটেরেচারে। তিনি আমাকে আর আমার এক বান্ধুবি কে সুপারিশ করলেন বিদেশি চাত্রদের বাংলা শিক্ষিকা করার জন্য। আমরা দুজনি ভালো করলাম জব ইন্টারভিউতে আর চাক্রিটা পেয়েছি।
সায়েম - ওই বান্ধুবিটা কি এখনো বাংলা শিক্ষাই?

মান্দিরা - না, ও এখন কি গভারন্মেন্ট অফিসার হিসাবে কাজ করে উয়েস্ট বেঙ্গালে। আমি কিন্তু খুব পচন্দ করলা বাংলা শিক্ষানো আত বেসি যে আমি পনর বচরের জন্য শিক্ষাছি।
সায়েম - আর আমি ওটার জন্য কুশি। আপনার সবছে প্রথম ক্লাস কেমন চিলো?

মান্দিরা - আমার প্রথম ক্লাসে থেন্টে সাত্র ছিলো - উইলিয়াম, লেসলি, আর আরাক মেয়ে কিন্তু আমার অর নাম মনে নেই। আমার প্রথমবার শিখানো খটিন ছিলো কারন অদিতি সেন আমাকে বলেন অদের সঙ্গে কন কন ইংগ্রেজি না বলে পড়াতে। এটা খটিন চিলো কারন অদের বাংলা তখন এত ভালো ছিলো না। আমার খুব মজা লাগ্ল কিন্তু করণ অরা আমার বয়েসে ছিলো আর আমদের খুব ভালো ফ্রেন্দসিপ হলো, কিন্তু অদের সঙ্গে আর কন্ট্যাক্ট নেই। আমি তখন পঁচিশ বইয়েস চিলাম।
সায়েম - আপনি প্রথম এমেরিকাতে এসছেন কখন আর এখানে আসার জন্য আগ্রহটা কুথার থেখে এসছে?
মান্দিরা - আমি এমেরিকাত এসছি ২০০৮, আর আমি প্রথম এসছি অ্যন আরবারে  বাংলা
শিখার জন্য উনিভারসিটি অভ মিসিগ্যানে। আমার এক আগের সাত্র আমাকে এই সুজগ বের করালো আর আমাকে বলো প্র‌য়াগ করার জন্য। কন ইন্টারভিউ ছিলো না, আর আমি চাক্রটা পেয়েছি।
সায়েম - যখন আপনি আমার বয়স ছিলেন, আপনি কিসে পড়লেন?

মান্দিরা -
আমি ভুগোল্বিদ্যা পড়লাম, কিন্তু আমি একদমি পচন্দ করলাম না। আমার লিটেরাচার ক্লাসগুনো কিন্তু ভাল লাগ্লো, আর সেজনে আমি আমার ব্যাচেলার দিগ্রি সেষ করারপর আমি একটা ম্যাস্টারস অভ চম্প্যারাতিভ লিটেরাচার করলাম।

সায়েম -
আপনার প্রিও ঔপন্যাসিক কেয়? 
মান্দিরা - আমি মিলান কুন্ডেরা, গ্যাব্রিয়েল গারসিয়া মারকেজ, আর সুনিল গংগল্পাতাই পচন্দ করি।

সায়েম - আপনার এখন কন আগ্রহ নেই নিযে নিযে লেখার জন্য?
মান্দিরা - আমি আগে অনেক লেখতাম, কিন্তু এখন আমি এখন এমনি বাংলা ব্লগে পস্ট করি। বাংলা ব্লগে লেখে আমার আরো আগ্রাহো আসছে লেখার জন্য। দেখি কি হই।
সায়েম - আপনার সবছে বয়েসের চাত্র কি ছিলো?

মান্দিরা - আমার এক চাত্র কল্কতাই আমার বারো বা পনেরো বচর বর চিলো। আমার অনেকগুন চাত্র ছিলো, বধাহাই এক হাজারের বেশি।
সায়েম -
আপনার চাত্ররা
সাজান্ত বাংলা পরে কেন?
মান্দিরা - চাটে কারনের জন্য অরা সাজান বাংলা পরে। অরা রিসার্চ করে, বা অরা তুমার মত সেকান্ড জেনেরেসান, বা অদের এক চম্পরকা কিউ বাঙ্গালি, বা অরা সোসাল উয়ার্ক করে।
সায়েম - আচা, এটা সর্বশেষ প্রস্ন হবে। আপনার লক্ষ কি এখন বাংলা সিক্ষিকা হিসাবে? আপনি কি এমেরিকাতে সারা জীবন তাকবেন বা আবার কলকতাই ফিরবেন? আপনি কি আর কন কিছু করবেন শিক্ষিকার বাইরে বা আপনার কন আগ্রাহ কি আচে অন প্রজা শিক্ষানো?
মান্দিরা - আমার লক্ষ এখন এমনি এইখানে তাখা আর বাংলা শিক্ষানো। আমি কলকতাই ভ্যারাতে যাই কিন্তু আমি এখনে শিক্ষিকা করা আরো পচন্ধ লাগে। আমার এখন্ন কনো নির্দিষ্ট প্ল্যান নেই ভবিষ্যতের জন্য।


Magazine Project - Nasta Club

বিকেলে নাস্তা ক্লাব  - সায়ম ইসলাম

হেলি গ্যালেগার দুই হাজার সাত সালের জানুয়ারী মাসে প্রথম বিকেলে নাস্তা ক্লাব শুরু করেছে। হেলি এখন মন্দিরার বাংলা ক্লাসে একজন ফারস্ট-ইয়ারের ছাত্রী, আর ইউনিভারসিটি অভ মিশিগ্যানের জেরাল্ড আর ফোরড স্কুল অফ পাব্লিক পলিসির সে একজন গ্রাজুয়েট স্টুডেন্ট। বাংলাদেশে পিস করপের জন্য চার বছর কাজ করে বাংলা ভাষা আর কৃষ্টির প্রতি ওর টান এসেছে। হেলি আরো কাজ করতে চায় বাংলাদেশে গ্র্যাজুয়েসান করার পরে কারণ ও বাংলাদেশের সংস্ত্রৃতি এতো ভালোবাসে আর গরিব লোকজনদের এত সাহায্য করতে চায়, কিন্তু উনিভারসিটি অফ মিশিগ্যানের প্রথম বাংলা ক্লাবের জন্য এখন ক্যাম্পাসে সে বহু কাজ করে।

বিকেলে নাস্তা ক্লাবের এখন প্রায় চল্লিশ থেকে পধওশা জন সদস্য আছে, আর প্রত্যেক শনিবারে স্টেট স্ট্রিটে আমেরস কাফে, বিকেলে চারটেয় শুরু হয় আর পাঁচটায় শেষ হয়। বিভিন্ন টিচাররা আর ছাত্ররা এই ক্লাবের মেম্বার এবং অনেক সদস্য আছে যারা উনিভারসিটি অভ মিসিগ্যানে পড়ে না। ওরা সাধারনত বাঙলি লোক যারা অ্যান আরবার অঞ্চলে থাকে। সবাই বিকেলে নাস্তা ক্লাবের একজন সদস্য হতে পারে, বাংলা কৃষ্টি আর খালি একটু আগ্রাহ লাগে ভাষার জন্য। এই ক্লাবের প্রেসিডেন্ট হলো হেলি গ্যালেগার, ভাইস প্রেসিদেন্ট হলো ছিমিন খান, ট্রেজারার হলো সায়েম ইসলাম, আর এতিহাসিক হলো সেলেস্ট বছিছিয়। আমরা সব মিলে বিভিন্ন অনুষ্ঠান করি অ্যান আরবারে আর বিভিন্ন ফাংশানে যাই। আমরা গত মাসে একুশে ফেব্রুয়ারি আর সারসবতী পুজোর জন্য একটা অনুষ্ঠানে গেলাম হাউটন হাইস্কুলে। হেলি গ্যালেগার আর ছিমিন নাচগান করলো অনেক লকজনদের সামন, আর সবাহ ওদের অনেক প্রশংসা করল। অন্য আরো অনুষ্ঠানে আমাদের নাস্তা ক্লাব তাংশগ্রহন ভবিষ্যয় করব, যেমন বিভিন্ন কমিউনিটি সারভিস আর trips মিসিগ্যানের বাঙ্গালি পরিবেসে হ্যামট্র্যামেকের মত।

মন্দির ভাদুরী এই ক্লাবের প্রফেসার, আর এই ক্লাবের বৃদ্ধির জন্য আর অ্যান আরবারের অনুষ্ঠান করার জন্য উনি অনেক কাজ করলেন। আমরা খালি এখন আশা করি এই ম্যাগাজিন পড়ার পর যে আমাদের নাস্তা ক্লাবের বিভিন্ন অনুষ্ঠানের প্রতি আপ্নার আগ্রহ বাড়বে।


Magazine Project - Sayem's Statement

আমার নাম সায়েম মনিরুল ইসলাম। আমি ইয়ুনিভারসিটি অভ মিশিগ্যানে একটা সিনিয়ার ছাত্র আর আমি মন্দিরা ভাধুরির সেকেন্ডইয়ার বাংলা ক্লাসে পড়ি। আমি এখন ডবল মেজর করছি অর্থনীতিতে আর ইতিহাসে, সে জন্য আমি আর এক বছর থাকছি কলেজে আর গ্রাজুয়েট করব দুই হাজার আট সালে। আমার আগ্রহ আছে ব্যবসার জন্য চাকরি করার পাশ করার পর।

আমি আমার জুনিয়ার ইয়ারে বাংলা নিয়েছি কারন আমি সবসময় বাংলা কথা বলতে পারতাম কিন্তু লিখতে বা পড়তে পারতাম না। আর এখন,
মন্দিরার কাছে তিনটে সেমিস্টার পর আমি বাংলা খবরের কাগজ ভালো করে পড়তে পারি আর আমার ভোক্যাবুলেরি আরো ভালো হয়েছে। এই সেমিস্টারের পর আমি নিজে আরো ভালো করে বাংলা শিখব। মন্দিরা খুব ভালো করে আমাদের শেখান আর ওনার মত এতো প্রফেসার নেই যারা ছাত্রদেরকে এতো জত্ন করে দেই শেখান।   

- সায়েম ইসলাম


'Cause it's all about Queens. heh.

Simeen
03.14.07
2nd Year Bangla

Reading Comprehension 18

These movie-queens, clever-queens, and polite-queens have so little societal approval/reknown that even to drama audiences, their time/identity must be explained, when one day they had all been actors in the traveling theaters. With their own talent, hard work, and earned good name they’ve helped the art of acting in such a desperate/crisis time, when acting with patroned or free-lance acting troup’s actors didn’t have the approval/acceptance of society. And because everyone couldn’t be Girish Ghosh, not many had the courage or the opportunity to disdain that societal taboo/interdiction. In those times, in the amalgam of women-free dramas, male artists like these movie-queens, clever-queens were the only “actresses”… Who, in theater slang, were called ‘beneputuls’ (literally: made-up dolls, euphemism for cross-dressing men, i.e. Queens ;).

When beneputuls acted, the audience was actually mentally prepared that female characters were being acted by male actors. So it’s not hard to conclude, what not-small (great) acting skills these beneputuls commanded. The reason that drama groups got called to act from far away places just to see their acting. They were each their own group’s “box artist,” whose name was what sold tickets day after day. Even after women started acting on patroned stages, to meet the demand of the audience, it wasn’t possible to think of anyone but the beneputuls for the heroine or other important female characters. 

Along with drama, an amazing acceptance works on the people about these beneputuls. Their acting ability, once-popularity, fame and today’s misfortune, all of these seem extremely usual/likely, a totally normal occurrence. In this way, because anything must be accepted, people in today’s theater are used to accepting. 

Bangladesh’s patroned or business theater’s male actors haven’t had to act for very long in the role of a wife. Actually, it can be said that traveling Bangla theater’s Girish-period was the beginning and the end of this trend. Established in 1872, National Theater is Bengal’s first general drama-school. In this National Theater, the famous actors of that time acted the parts of the female characters.

-----

i tried to stick to the actual words used in the article as much as possible while getting across the English meaning. i'm pretty sure i got the gist of it--but i could be way off --especially in the details, so please let me know, Mandiradi.


Comprehension 18

এই ছবিরানী, চপলরানী বা বিমলরানীদের সামাজিক স্বীকৃতি এখন এতটাই অস্তিত্বহীন যে নাটকের দর্শকদের কাছেও এঁদের পরিচয় সময় বলে দিতে হয়, এঁরা সবাই একদিন যাত্রা-থিয়েটারের অপ্রতিদ্বন্দী অভিনেতা ছিলেন। নিজেদের প্রতিভা, পরিশ্রম আর অর্জিত সুনাম দিয়ে এঁরা অভিনয়-শিল্পকে সাহায্য করেছেন এমন এক বিপন্ন সময়ে যখন, পেশাদারী বা শৌখিন অভিনয়ের দলে অভিনেত্রীদের নিয়ে অভিনয় করার সামাজিক অনুমোদন ছিল না। এব; যেহেতু সবাই গিরিশ ঘোষ হতে পারেন্নি, সেই সামাজিক নিষেধাজ্ঞাকে অমান্য করার সাহস ও সুযোগ অনেকেরি ছিল না। সেই সময়ের নারী-বিহীন নাটকের দলগুলিতে এই ছবিরানী, চপলরানীর মত পুরুষ শিল্পীরাই ছিলেন একমাত্র অভিনেত্রী। নাটকের চলতি ভাষায় জাঁদের বলা হত বেনেপুতুল...

বেনেপুতুলরা যখন অভিনয় করতেন তখন দর্শকরা কিন্তু মানসিকভাবে তৈরিই থাকতেন যে নারীচরত্রগুলিতে পুরুষ অভিনেতারা অভিনয় করছেন। কাজেই ভেবে নিতে অসুবিধে হয় না , কি অসামান্য অভিনয়-ক্ষমতার অধিকারী ছিলেন এই বেনেপুতুল্রা। যে কারণে শুধুমাত্র এঁদের অভিনয় দেখতেই দূরদূরান্ত থেকে  অভিনয়ের ডাক আসত নাটকের দলগুলির কাছে। এঁরা প্রত্যেকেই ছিলেন নিজের নিজের দলের বক্স আর্টিস্ট, যাঁদের নামেই টিকিট বিক্রি হয়েছে দিনের পর দিন। এমনকি পেশাদারী মঞ্চে মেয়েরা অভিনয় শুরু করার পরেও দর্শকদের জনপ্রিয়তার চাহিদা মেটাতে নায়িকা বা অন্যান্য প্রধান নারী চরিত্রে এই বেনেপুতুলদের ছাড়া কারও কথা ভাবা যায়নি।

নাটকের সঙ্গে যুক্ত লোকজনের মধ্যে এক অদ্ভুত নিস্পৃহতা কাজ করে এই বেনেপুতুলদের সম্পর্কে। এঁদের অভিনয় ক্ষমতা, একসময়ের জনপ্রিয়তা, খ্যাতি এব; আজকের দুরবস্থা, এসব কিছুই যেন এক অত্যন্ত স্বাভাবিক, নেহাতি সাধারণ এক ঘটনা। এভাবে নিছক মেনে নিতে হয় বলেই যেন মেনে নিতে অভ্যস্ত আজকের নাটকের অধিকা;শ লোকজন।

বা;লা পেশাদারী বা ব্যবসায়িক থিয়েটারে পুরুষ অভিনেতাদের খুব বেশিদিন স্ত্রী-ভূমিকায় অভিনয় করতে হয়নি। বর; বলা যায় বাণিজ্যিক বা;লা নাটকের গিরিশ যুগেই এই ধারার অভিনয়ের শুরু এব; শেষ। ১৮৭২ সালে প্রতিষ্ঠিত ন্যাশনাল থিয়েটার বা;লার প্রথম সাধারণ নাট্যশালা। এই ন্যাশনাল থিয়েটারে সে সময়কার বিখ্যাত অভিনেতারা নারী চরিত্রে অভিনয় করতেন।

- বেনেপুতুল/ শীর্ষ বন্দ্যোপাধ্যায়, সাপ্তাহিক দেশ-এর অর্ন্তগত


Fatema's Translation of Comprehension 18

These movie queens, smart/clever queens, or polite queens in the approval of society have been exiled, that in front of the play’s audience they needed time to be introduced. One day they all were Jathra Theater’s alternative actors as no alternative actors remained. With their own talent, hard work and earned respect they helped the actors in such a crisis when a professional or fancy acting crew could not perform with actresses because of social disapproval. And when everyone could not become Girish Gosh, that there was no one with the courage or chance to disobey the warning. In that time’s actresses groups, there were these movie queens, clever queen-like male artists, the only “actresses.” In the common language of dramatic acting, they were called “Beneputul” – made-up dolls.

When the Beneputul would act, the audience would prepare their morals to understand that the female actresses were really males acting. No one had trouble believing, so was the incomparable competence of the Beneputul’s acting. For this single reason people from far and wide would come to see their plays. They were each their own “box artist,” those whose names sold the tickets day after day. Even after females started acting in this stage career to please the audience’s demand and love, the heroine or another prime female character being portrayed by anyone other than a Beneputul was unthinkable.

With the play and the people there was a cooperative relationship in regards to the Beneputuls. Their acting abilities, at one time loved by people, good reputation and today’s unfortunate times, all of which is more typical, anyway is a common incident. In this manner of acceptance, anyhow, more than half of today’s plays are bound to accept this.

Bengali workers or those male who were in the business of theater did not have to act like female actresses for very long. Or it can be said, the business of Bengali plays like the classical times started and finished then. In 1872 Prothishtito National Theater became Bengali’s first regular auditorium. In this national theater these timeless famous actors acted as actresses.


When I was even younger...

যখন আমি বাচ্ছা ছিলাম আমার কোনো বন্ধু ছিলো না। কেও আমাকে পছন্দ করত না কারন, আমার মনে হয়, আমি বেশি ঘুস্ল করতাম না আর এই জন্য আমার চুল থেকে এমন গন্ধ বের হত।  একা একা থেকে আমার খুব মন খারাপ করতাম।  কিন্তু আমার গ্রামে একটা ছাগল রোজ আসত।  তাই, আমি ও ছাগলের সঙ্গে খেলতাম।  আমরা অনেক মজা করতাম।  আমরা হাসতাম, ফুটবল খেলতাম, আড্ডা করতাম।  ও ছাগল আমার প্রিয় বন্ধু ছিল।  আমি তাকে গৌর নামটা দিলাম।  কিন্তু এক দিন, আমার অনেক খিদা লাগল।  তাই, আমি গৌরকে নারকোল দিয়ে মেরে ফেলাম। আমার মন খারাপ হল না, কারন আমি আর আমার পরিবার ও রাতে খুব ভালো ভালো পাঁঠার মাংস খেলাম। 


Extra quiz/homework

The following is a translation of a comprehension practice exercise that Dr. Bhaduri assigned to us last week for extra credit. I'm the only student in the class who's taking it on, because I'm also the smartest student in the class. However, despite my genius, this exercise proved to be really difficult, as it had a lot of weird syntax usage that I wasn't familiar with before, and there was some vocabulary in it that I, or even my dictionary, weren't familiar with. Even though I've read and translated this exercise, I still only understand just 1/4 of it. My translation below may not make sense on a lot of parts, and it's testimony to how weird these sentence structures were. I felt like I was I was reading hieroglyphics last night for three hours.

One thing that I HATE about reading Bangla is that you can't tell whether a word is a common verb/noun, someone's name, something's name, or some dog's name. There are no capital letters. They should make it a rule to add Babu at the end of everyone's name so that more people will know what it is.
---------------------------------------------------------------------------------------

This film, restless/bad or clean/good, the social acknowledgment earned by it now exists so much that drama spectators also say that the film deserves it. With their own talent, hard work, and earned reputation they aided the marketing of the art of acting at such a time, professionalism or fancy acting team of actresses didn't have the social acceptance to act. Therefore because not everyone was able to become "lord of the mountains sound", the courage and "shojog" weren't in a lot of people to neglect the social prohibitions. In this time, the plays devoid of women were in teams of the film, restless/fickle-like men were the only artists that were "actresses". The colloquial language of plays were for people who were called "Beneputhul".

When Beneputhul would act then spectators would be imaginative about female behavior on the bullet doing male acting. At work also, it's not a problem to think about it, what extraordinary acting-power the Beneputhul possessed. Because of that only they saw their acting from afar that abled them to be called for acting. They were all on their own teams "Bokro Artist", in whose name tickets were sold day after day. Is this kind of professionalism that girls that acted even after starting the spectators popularity needed actresses or other main female roles in this Beneputhul, other than this no else's word was believable. With the play, among the councilmen one strange "neespreehotha" worked about the Beneputhul. This is how the situation has led to a greater proportion of people in plays. Bangla professionals or theater businessmen didn't let male actors take roles of wives for a long time. In the year 1872, the first national Bangla drama theater was established. This national theater at the time was famous for having female actresses acting.

---------------------------------------------------------------------------------------

*Note: I have no idea where "lord of mountain's sound" came from, but that is how my Bangla dictionary translated those words. I swear.






















Journal 4

আমি জুদি বেরাল হুতাম, আমার জিবোন খুব মজা হত। আমি রুজ মাছ আর দুধ কেতাম। আমি সব ইদুরে পেছনে ছুতাম আর ওদের কে ধদতাম। আর সব কুকুরগুলো আমাকে বিড়োক্ততো করতো। আমার সারাদিন ঘুমোতাম আর নিজেকে পরিস্কার রাখতাম।


নাক্সলের ইতিহাস

নাক্সলবারি করে একটা ছোটা গ্রাম আছে,  পশ্চিমবাঙ্গাতে। সে গ্রামে বড় জমিন্দার লক আদিবাসিকে অনেক শোষণ করত।  একবার জমিন্দারের গুন্ডা লক  একজন  আদিবাসিকে মারামারি করেছিল।   আদিবাসি  প্রবাদ করেছিল,  সেগুলো পরিবর্তন  চাইত।

আদিবাসির আন্দোলন দুজন সাম্যবাদের দলের সভ্যের দৃষ্টতে এসে গিয়েছিল।  চারু মজুমদার এবং কনু সন্যল দুজন জুবক যাদের মনে ছিল যে শ্রেণীহীন সমাজের বেপ্লব শুধু গ্রামে শুরু হতে পারে।  তাদের মাওবাদে মার্ক্সবাদি ছেয়ে বেশি বিষেশ করত।  তাহলে তাদের নাক্সলবারি গিয়ে CPI-M-এর বিরুধে একটা নতুন মাওবাদি দল তৌরি করেছিল।  পরে সে দলকে নাক্সল বলা হল।

১৯৭০-১৯৭৩ নাক্সল দলে কলকাতার ছাত্ররা উপরে খুব প্রবাভিত হয়েছিল।  প্রেসিডন্সি কলেযে
তাদের কেন্দ্র হয়ে গিয়েছিল আর জাদবপুর উনিভর্সিটিতে বড় প্রবাদ করেছিল।  সাম্যবাদের সরকার নাক্সল দলকে বাইনি করে অনেক যুবান ছাত্রকে গের্ফতার করার ছাড়া মেরে ফেলেছিল।  ১৯৭২ সালে পুলিস নাক্সল দলের নেতা, সনু মজুমদারকে গের্ফতার করে তিব্র যন্ত্রণা দিয়ে মেরে ফেলেছিল।   

আস্তে আস্তে নাক্সল দল কলকতায় কম হয়ে গিয়েছিল।  কিন্ত ভারতের গ্রামে যেখানে তৌরি হল সেখানে অনেক নাক্সল দল সরকার আর জামিন্দার সাথে যুদ্ধ চলছে।  আন্ধ্রা প্রাদেশে, চত্তিসগঢে, ঝারখন্ডে, আর বাংলাদেশে অনেক নাক্সল দল আছে।  সরকার তাদের সমত্রাসবাদি বলে।  সরকার আর নাক্সলের যুদ্ধের পরিনামে অনেক নির্দষ লাক মারা গিয়েছে।  কিন্ত যতক্ষন গ্রামে শ্রেনী অসাম্য থাকে ততক্ষন নাক্সল লড়াই চলবে।


Journal: When I was younger...

যখন আমি ছোটো ছিলাম, আমি অনেক বোকামি করতাম  যখন আমার শিক্ষিকা ক্লাসে আসত, তখন আমি আমার বগল দিয়ে পাতের সব্দ বানাতাম  সে লাফিয়ে বলত, “আরে ওয়াসিম!  আমি তমার বাড়িতে গিয়ে তমার বাবা-মার সামনে তমাকে দমুখ দেব  আর আমি বলতাম, “কোরো  যদি তুমি আমাদের বাড়িতে আস, তবে তমাকে শোঁকে আমরা সব মরে যাব  আর সে এমন রাগ করত যে সে আমাকে ক্লাসের সামনে  পিত্তি দিত  কিন্তু আমি ভেতা পেতাম না কারন আমি আঠেরো বছর ছিলাম  কলেজে নৃতত্ত্ববিদ্যা পড়তাম


antrojatik nari dibosh

Reposting it again, after 9 years. I still get rejuvenated reading it. Wish a Happy Women's Day to my blog viewers.

Anka_8 আমার প্রিয় বন্ধু ও ছাত্র ছাত্রীরা

আজ আর্ন্তজাতিক নারী দিবস ! তোমাদের সকলকে শুভেচ্ছা জানাই। তোমাদের জীবন সুন্দর ও সফল হয়ে উঠুক।

সুমতী মায়া এঞ্জেলিউর একটা কবিতা আমাকে ফরোয়ার্ড করেছে, আমি চাই তোমরাও সেটা পড়।

A WOMAN SHOULD HAVE ...
enough money within her control to move out
and rent a place of her own, even if she never wants to or needs to...
……..
A WOMAN SHOULD HAVE ..
a youth she's content to leave behind....


A WOMAN SHOULD HAVE ...
a past juicy enough that she's looking forward to
retelling it in her old age....

………..

A WOMAN SHOULD HAVE ....
one friend who always makes her laugh... and one who lets her cry...
………..
A WOMAN SHOULD HAVE ...
a feeling of control over her destiny...


EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
how to fall in love without losing herself..

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
how to quit a job, break up with a lover, and confront a friend without; ruining the friendship...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...

when to try harder... and WHEN TO WALK AWAY...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...

that she can't change the length of her calves,
the width of her hips, or the nature of her parents..

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
that her childhood may not have been perfect..but its over...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
what she would and wouldn't do for love or more...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
how to live alone... even if she doesn't like it...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW..
.
whom she can trust,
whom she can't,
and why she shouldn't take it personally...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
where to go...
be it to her best friend's kitchen table...
or a charming inn in the woods...
when her soul needs soothing...

EVERY WOMAN SHOULD KNOW...
what she can and can't accomplish in a day
...
a month...and a year...


fatema's self-introduction

আমার জিবনের কথা

 

আমার নাম ফাতেমা। আমি বা;লাদেশে বড় হয়েছি। আমার মাত্র এক ভাই আছে। তার নাম আশরাফ। আমার ডাক নাম আছে। এটা হল রুমা। আমার ভাইয়ের ডাক নাম হল রুহিন। এই ডাক নামটা আমার রুবি খালা আমাদেরকে দিয়েছিলেন। সে তার নামের সঙ্গে মিলিয়ে দিয়েছিলেন।

 

যখন আমি ছোটো ছিলাম তখন আমার আম্মা মেরে গিয়েছিলেন। আমি মাত্র তিন বচর ছিলাম। আমার আব্বা আমেরিকায় চলে এশেছিলেন যখন আমি চার বচর ছিলাম। আমার নানু, খালা, আর দুমামা আমাকে আর রুহিনকে মানুষ করেছিলেন। যখন আমি নয় বচর হয়েছিলাম তখন আমার আব্বা আমাকে আর আমার ভাইকে আমেরিকায় এনেছিলেন। এর পর থেকে আমি ওখানে বড় হয়েছি।

 

এখন আমি ডাক্তার হতে চাই। এর জন্যে আমাকে খুব বেশি ভিঙান পড়তে হয়। কি জাতের ডাক্তার হতে চাই আমি আব জানি না, কিন্তু আমি আশা করি এখদিন জানব।

 

আমার বা;লা ক্লাস খুব ভালো লাগে। বা;লা শিকার আমার খুব ইচ্ছা আছিল আর আমি এখন খুব খুশি হয়েছি যে শিকতে পারচি।

 

কিছু জিনিস আমি খুব ভালো পাই আমার রান্না করতে ভালো লাগে। আমি অনেক জিনিস রান্না করতে পারি। গত বৎসরে আমি ১৫ জনের জন্য রাত্রের খাবার রান্নেছিলাম। তাঁরা খুব ভালো পেয়েছে। আমার গল্পের বইও পড়তে খুব ভালো লাগে। আমার প্রিয় বই হল “The Catcher In The Rye”। এই বইটা J.D. Salinger লিখেছেন। আমার প্রিয় সিরিজ হল হেরি পোটার। দুৎসর আগে যখন আমি বাংলাদেশে গিয়েছিলাম তখন আমি আমার বাবাকে ইনডিয়াতে পাঠিয়েছিলাম বইটা কিনার জন্য কারণ নতুন একটা বই বেরিয়েছিল।

 

তাহলে আমার সমন্ধে অনেক কথা বলেছি। আমি আশা করি তোমরা এখন আমাকে একটু ভালো করে চিন। ভালো থাকো।


Apni vs. tumi

Simeen and I discuss the usage of "apni" and "tumi" and the differences between Bengali and English culture in regards to that topic. We also discuss different relationships in which there is a necessity for certain amount of respect, in which case there are different ways of addressing people.


News Tidbits

What's happening around the world: China has blocked access to many blogs (LiveJournal, Blogger, etc.) to Chinese citizens; Dr. Yunus is running for Bangladeshi political office; the effects of global warming/melting of the ice caps; and the Cherokee nation expelling black people.