https://www.verbling.com/find-teachers?price%5B%5D=5&price%5B%5D=80&sort=magic&language=bn

« November 2007 | Main | January 2008 »

Celebrating one year of UMBangla blog

Dear students

Can you believe that one year has been passed since this blog was created ? Some of you are still using it, some of you are not studying bangla any more, some of you are new students.

Many things have changed since 2006. Salma is teaching in the U of M. I am teaching in U of Chicago and all students from both Universities are using this blog. Plilomena of LRC in U of M is still maintaining it.

I wish you all a very Happy New year and hope you will share your bangla skill and knowledge of the culture, your fun and sad moments, your hobbies and your projects in this blog.

Right now, I am in Kolkata and enjoying my stay .

See you in the next year.

Mandira


Extra Credit Journal

আমি নুটিরেনের (“nutrition-er”) পরা (wrong “r”; “studying”) খুব ভালোবাি I এখনও আমি নুটিরেনের কুলে যাই নি, কিনতু একটু একা পরি I আর আমার বন্ধু থেকে অনেক েখি, কারন  বেশি অনেক খাবারের যানেন (wrong “j”) I  ভালো রাননা করেন, পর কী খাবারের ঙে কন খাবার মিলবে যানেন I আমিও একিন  যানতে চাই I ;-)


Journal 5

আজ হল দিসেম্বার মাসের পাঁচ তারিক, আমার ভাই অরিজিতের জন্মদিন। আমার ভাই আমার থেকে প্রায় চার বছরের ছোট কিন্তু তাও আমাদের দুজনের মধ্যে ভীষণ ভাল বন্ধুত্ব। বোধ হয় আমরা মনে করতাম যে আমাদের মতন আর কেও নেই – এক হাথে আমাদের মাবাবা অন্য দেশ থেকে আসার ফলে আমাদের সমস্যা কন দিন ঠেক বুঝতে পারত না কিন্তু আবার আর এক হাথে বলতে হবে যে আমাদের পারার সাদা ছেলেমেয়েরাও তো আমাদের সম্বন্ধে খুব কমি জানত, বোঝা তো দুরের কথা। তাই আমরা দুজন দুনিয়ার সব কথা নিয়ে শুধু আমাদের দুজনের ভেতরে আলোচনা বলতাম| আর কাওকে তো বলার ছিল না! গপন কথা ছারাও আমরা তো এনেক বাইরে খেলাধুলো করতাম আর বই পরতাম আর টিভি দেখতাম। দস-বারো বছরের জন্য আমরা প্রায় সব কিছুই এক সাথে করেছি। আজকাল আমরা দূরে থাকি, মাত্র বছরে দুতিনবার দেখা হয়, আর আমরা নিজেদে কাজে এমন ব্যস্ত থাকি যে শুদু মাসে দুতিনবার ফোনে কাথা হয়। তাহলেও আমাদের দুজনের মধ্যে প্রচন্ড ভালোবাসা আছে। এইটা কিন্তু কনোদিন পাল্টাবে না।


Journal 4

আট বছর আগে আমি কলকাতায় একা ছিলাম তিন মাসের জন্য। আসলে একা বলা উচিত নয়, কেন না আমি বাংলা পড়তে গিয়েছিলাম। আমরা ছিলাম চার ছাত্র আর আমাদেরকে পড়াতেন তিনতে মহিলা, কিন্তু এই হল আমার জীবনের শুধু এক বার যে আমি বিনা মাবাবা ছিলাম কলকাতায়। তাই আমি বললাম যে আমি একা ছিলাম অথচ স্বিকার করা দরকার যে আমাদের বাংলা পরার জায়গার কাছেয় থাকতেন আমার জেঠা আর পিসি, ঠিক ওই বালিগাঞ্জ পারাতেই। প্রত্তেক দিন আমার পড়াশোনা শেষ করার পর আমি হেটে জেতাম আমার জেঠার বারিতে। সেখানে জেঠু-জেঠিমার সাথে দু-তিন ঘন্টাখানেক গল্পটল্প করার পর আমি যেতাম আমার পিশির বারিতে খাওয়াদাওয়া করতে। সারা সন্ধ্যা আত্মীয়স্বজনদের সঙ্গে সময় কাটিয়া রোজ আমি ফিত্রাম রাত দসটার পর। সেই দিনগুল আমার এখনো কেমন ভাল করে মনে আছে। এত ভালবাসা পেয়ে আমি শেষ পর্জন্ত বুঝতে পারলাম ঠিক “রক্তের সম্পর্ক” সব্দতার মানেটা কি।


Journal 3

আট বছর আগে আমি কলকাতায় একা ছিলাম তিন মাসের জন্য। আসলে একা বলা উচিত নয়, কেন না আমি বাংলা পড়তে গিয়েছিলাম। আমরা ছিলাম চার ছাত্র আর আমাদেরকে পড়াতেন তিনতে মহিলা, কিন্তু এই হল আমার জীবনের শুধু এক বার যে আমি বিনা মাবাবা ছিলাম কলকাতায়। তাই আমি বললাম যে আমি একা ছিলাম অথচ স্বিকার করা দরকার যে আমাদের বাংলা পরার জায়গার কাছেয় থাকতেন আমার জেঠা আর পিসি, ঠিক ওই বালিগাঞ্জ পারাতেই। প্রত্তেক দিন আমার পড়াশোনা শেষ করার পর আমি হেটে জেতাম আমার জেঠার বারিতে। সেখানে জেঠু-জেঠিমার সাথে দু-তিন ঘন্টাখানেক গল্পটল্প করার পর আমি যেতাম আমার পিশির বারিতে খাওয়াদাওয়া করতে। সারা সন্ধ্যা আত্মীয়স্বজনদের সঙ্গে সময় কাটিয়া রোজ আমি ফিত্রাম রাত দসটার পর। সেই দিনগুল আমার এখনো কেমন ভাল করে মনে আছে। এত ভালবাসা পেয়ে আমি শেষ পর্জন্ত বুঝতে পারলাম ঠিক “রক্তের সম্পর্ক” সব্দতার মানেটা কি।


Journal 2

আমাদের আজকাল এই দেশে বাঙালি ছেলেমেয়েদের পক্ষে দুটো আলাদা প্রশ্নের কিন্তু মাত্র একি ঠিক জবাব আছে। সেই দুটো প্রশ্ন হল “ভাল বাঙালি হওয়া মানে কি” আর “ভাল ছাত্র হওয়া মানে কি”। এই দুটো প্রশ্নের উত্তর হল “ডাক্তারি পড়তে জাওয়া”। শুধু ডাক্তারি পড়লেই নাকি প্রমান হয় যে একজন হল ভাল বাঙালি, ভাল ছাত্র, এবং ভাল মানুষ। এই হোল আমাদের বাঙালি সংস্কৃতির আবস্থা| এক সময় আমাদের মদ্ধে ছিল কত দারুন লেখক এবং শিল্পী কিন্তু আর কয়েক দিন বাদে থাকবে শুধু ডাক্তার। একে বলে কি উন্নতি? হতে পারে কি যে সব ভাল ছেলেমেয়েদের পক্ষে মাত্র একি ভাল পথ রইয়েছে? তাহলে আমাদের বাঙালি সংস্কৃতি আর রইবে বা কি?


Journal 1 (from Oct 1)

১ Oct ২০০৭

তিন মাসে আমার কলকাতা গিয়ে বিয়ে হবে৷  ঐ উয়িকেণ্ডে আমার মা-বাবা এন্গেজ্মেণ্ট পাড়্টিতে অনেক বন্ধুদেরকে নিমন্ত্রন করেছিল৷  তাই আমি বাড়ি গিযেছিলাম এবং কন পরাসনা হয়ে নি৷  সাম্নের সুক্রবার আমায় বস্টনে গিয়ে মেড়ির সাথে কর্টে বিয়ে হবে৷  তার্পর সনিবারে আমাদের দুজন বন্ধুর বিয়ে৷  সবী আনন্দের কথা৷  তবুও, যতোই মযা হছে, আমি কিন্তু ঠিক পরা-সনা করার সময় খুজে পাছি না৷


Journal 5

Sorry this is so late!  I thought I had already posted Journal 5.  I just realized when looking at the blog that I didn't :(

আমি অনেক রাননা করি I  আমি নানারকম খাবার রঁাি: আরাবেক, মেকশিকেন, ইটালিয়ন, করিয়ন, আর বেশ I কিনতু আমার পরিয় খাবার বাঙালি I আমি ময় কুরি রাননা করচিছ I আমি বেশি ঋাল ভলোবাি I

পনার ভলো রেশিপি আছে ? পশট করুন না ! ;-)


Journal 5--বুগুলির গল্প

বুগুলির গল্প

এ কাহিনি খুব মজা চিল।  একটা ছেলে আট বছর মা হতে চায়।  ও বুঝতে পারে না যে মা হতে পারবে না।  কিন্তু ও কেন মা হতে চায়?  গল্প থেকে আমরা বুঝতে পারি যে বুগুলি ওর মাকে খুব ভলোবাসে।  এত ভালো বন্দুত আছে ওর মা সঙ্গে যে ও এক দিন একি অবুস্তা চায়।  সমসা হছে যে ও বুঝতে পারে না যে ছেলে মানুস মা কখন হবে না।  যখন বুগুলির মা ওকে বুঝায় দায়, তখন ও কাদছে বন্দ করে।  ও বুঝে যে সারাজিবন একা হবে না।  ও মা না হলে সমসা হবে না কারন বুগুলি এক দিন বাবা হবে।  আট বছরের ছেলে জন্য এতা কটিন concept । গল্প সেশের পর্যন্ত আবার ফিক ফিক করে হাসতে পারে। 

এ কাহিনি ভালো লাগলাম কারন আমরা সবসমই দেখি যে সুদু মেয়ে মা হতে চায়।  কিন্তু আমরা কেন assume করে যে ছেলে মানুস কখন মা হতে চায়?  আমাদের সান্সক্রিতিক হল যে মেয়ে মানুস মেয়ের role কেল্বে আর ছেলে মানুস ছেলের role কেল্বে। আজ কিন্তু মানুস সান্সক্রিতিক challenge করে। ওনেক জাইগা lesbians, gays, bisexuals, and transvestites আছে।  সবাই এ মানুস্কে বুঝে না, কিন্তু আমরা আস্তে আস্তে বুঝছি আর accept করছি।        


Adil's Favorite Foods

আমার অনেক প্রিও খাবার আছে। মার রান্না আমার খুব ভাল লাগে, আর শবছে প্রিও লাগে যখন বিশ্তির দিনে মা কিছুরি রান্না করে। আমার মার কিছুরি বেশে বিজানা আর বেশে dry না। আমারা শব আকশাতাই বশি আর কিছুরি আর আছার কাই। আমি আক্তা নুথুন রকমে কিছুরি কাই, আমি ketchup দিয়া কাই। এতা মজা কারন আছাররের মতন। আমার প্রিও মিস্তি হল রসগলা। আমার মার রসগল খেতে খেতে আর কুন রসগল আত ভাল লাগেনা। আমার খাল মিস্তি, জা মুন গুলাপ জাম, পসন্দ হই না। আমার দাআল আর আলু বরথা খেতে ভাল লাগে। মাংশ আমি বেশে কাই না, আর বরতা (অক্রা, বেগুন, সিম, দিম, শাক) খেতে দারুন লাগে। ভাত শেশ হলে অনেক শমই আমি আম দেই দুদ ভাত খাই। আম না থাকলে আমি কলা দিয়া খাই। আমার বরহানি আগদম ভাল লাগে না, কিন্তু আমার আমের লাসসি পসন্দ হই। আমার ভাইগুল মার দাআল আর লেবু খুব পসন্ধ করে কিন্তু তারা রান্না করতে পারে না। থাঙ্কসগিভিঙ্গে আমার মা থাদেরকে দাআল রান্নাতা সিকাইশে। আমার মনে হই যে এতা খুব কতিন বেপার। ভাইরের বেঙ্গালি রান্না আত ভাল লাগে না, কিন্তু মতের পানীর ভাল লাগে আর মা এতা বেশে রান্না করে না। অনেক দিন ভাত খেতে খেতে মনে হই যে আর কিছু অন দেশের কাবার খাই। মা অনেক শমই স্তির-ফ্র্য আর নুদুলস করে। কাবার কথা লেক্তে লেক্তে আমার কুধা এসেছে।


Extra Credit Journal 1

আমরা যে প্রেমের গল্প পরেছিলাম ক্লাশে, সে গল্প ত নিএ ভাবছিলাম। প্রেম কি? আনেক রকোমের প্রেম আচ্ছে, জেরোকম এক্তা প্রেম তোমার পরিবার বা বন্ধুদের জন। প্রেমও হতেপারে জিনিসের জন, জেরোকোম আমি মেয়েকাপ, খাবার, ঘুম, আর বোইকে সব আনেক ভালোভাসি। কিন্তু সবশে কথিন প্রেম হচচ্ছে ভালোভাসি। এই গ্ল্পটাতে দু জন জানেনা অদর বন্ধুত্ত প্রেম নার আরো কিচু বেসি আচ্ছে। ওদের ঞ্জিরে বঊ আর স্ত্রিদের জন্য প্রেম ছিলো, তাই জন্য ওদের আবাক লাগছিল জ়ে অরা দুজোন ওনো জনের ছাড়া থাকতে পারছে না। ভালোভাশার আনেক সমোসা হতে পারে। জ়ুদি আক জোন বা দুজোনের বিয়ে হয়ছে, এতা খুব মুস্কিল। মুস্কিলোও হতে পারে জদি দুজোনের ধরমো মেলেনা, বা জুদি তোমার পরিবার বলে এই প্রেমটা ত হতে পারবেনা। আনেক জেতা এক জন ছাই ছাই শেটা আরেক জোন ছাইনা, আর এটা খুব মুস্কিল কারোন তুমি ওন্য জোনের সঙ্গে থাক্তে ছাও, কিন্তূ তুমি তাও থাক্তে ছাও। আমি জ়েটা ভাবছা সেটা হচ্ছে যে আরেক মানুসের জন্য কিররে প্রেম হয় জাই? সবাইর মাথার মধে এক্তা "আইদেয়া" থাকে, যে আমি কী ছাই, জেরোকম ভালো দেক্তে, ভালো মোন, "ঈন্তেল্লীগেন্তল্য" করে কথা বলতে পারে। কিনু জার সঙ্গে আমদের প্রেম হয় আর জার সঙ্গে আমরা ছাই যে প্রেম হয় অনেক তফাত আছে।


Journal 5

আমী খুব "এক্সাইটেদ" এই সাম্নের ছুটির জন্য। আমি বিস্রাম করতে পারব আর আমাকে কন্য পড়াসনা করতে হবে না। আমি মাল্লে বাজার করব আর আমি ভালো ভালো সিনেমা দেখব। আমার মাল্ল থেকে "জেন্স", "বুটস" দারকার, আর এই এম্নিত এই সময় সবয় বাজার করতে ভালোভাসে। আমি আমার বনের শঙ্গে সময় কাটাবো, কারন ওর সঙ্গে দখা হয়না আতোটা। এই "সেমেস্তেরে" আমি কম "টভ" দেখেছি, তাই জন্য আমি ছুটিচতে আমি আমার "লাপ্তপে" আমার শব প্রিও "টভ সোও" দেখব। আর প্রোটেক "নু ইয়েরস ইভে" আমার মা আর বাবার এক্তা ভালো বন্ধুদের বাড়িতে পারটে" হবে। সে পারতে খুব মজা হবে, আনেক নাছা-নাছে হবে! আমার বিসাশি হচ্ছে না যে আরেক্টা বচ্ছর সুরু হবে। আরেকটা বাচ্ছার মানে আমার কুরি বাচ্ছার বয়স হবে, আমি ছিন্তাই ক্রতে পারছি না যে আমার এই বয়স হবে। এই নতুন বাচ্ছর আমি ছাই জ়ে আমার আর আমির পরিবারে ভালো স্বাস্থ্য থাকে, আর আমি আর আমার বন ভালো পড়াশনা করি।


Pather Panchali Reactions

পাথের পাঞ্ছালি চিনিমাতা আমার খুব ভাল লেগেছে। আমার মনে হই যে এতা আমার শবছে প্রিও চিনিমা এয় বরছরে। দুরগা আর আপু শাতে আমি মিল পেয়াছি। আপুর মা আমার মার মত আমার লাগছে। গ্রামতা আমার বাবার গ্রামের মত দেখতে। আমার বাবার গ্রাম হচ্ছে বাঘদুমার, এতা সিরাজগংজের মদ্দে। আমার মনে আছে যে আমি ছত তাক্তে আমি পুকুরে মদ্দে শাতা করতাম। আমার মার বারিতে আক্তা মহিলা তাক্ত, রহি নানু, শে অনেক্তা দুরগার খালার মত। শে ছিল যখন আমার মার জন্ম হএছে আর শে আমার ভাইকে খুব আরদর করত। শে কইয়াক বরছ আগাই মারা গেছে। চিনিমার মদ্দে দুরগা পায়রা আর কুশাল কেত। আমার বাবার গ্রামে অনেক কুশাল কেথাম আর অনেক গুর তইরি হত। পায়রা আমার আত মজ লাগত না কিন্তু আমার মা খুব পসন্দ করে। আমার আমরা, কাতাল, আম, লিছু, আর কুশাল পসন্দ হ। এয় বার বাংলাদেশে এগুল পাব না কারন আকন শিতকাল। বাবার গ্রামে আমার অনেক মজ হত। আখন আমার বেছি আতিও নাই গ্রামে কিন্তু তাও আমার ভাল লাগে। আমার দাদার অইখানে করব দাওা হএছে। বাবা গ্রামে আক্তা সছুল কুলেছে অনেক বরছ আগে আর ছেলে মাই গ্রামে গল অইখানে পরে।


Winter break in Bangladesh

আমি দেচেম্বারতে বাংলাদেশে জাব। আমি, আর আমার মা বাপ এবং দাদি জাব দুত শপ্তার পরে। এয়বার আমি প্রথম জাব West coast ভাভে, আমি জাপানে আর সিঙ্গাপরে আগে জাব। আমি অনেক দিন হএয়া বাংলাদেশে জাই নি, আমার বর বুনের বেয়াতে last জাইছিলাম। অই শমই আমার খুব মজা লেগেছে। এয় বার আমরা জাব কারন আমার আবুর BUET reunion হবে ধাকাতে এয় মাশে শেসাই। আমি চক্স বাযাআর আর ছিতাগঞ্জ আর খুলনাতে জেতে ছাই এয়বার। আমি থাকব থিন শপ্তাহার জন। আমার এচ্ছা গে আমি এয়বার প্রথম বাঙ্গালি পরতে আর লেক্তে পারব। হয়তবা আমার খুব practice হবে আর আমি এসশে চলাসসে খুব ভাল করব। এতা হলাই আমার মা আর আবু খুব কুশি হবে। আমার ভাই তার বও আর মাইকে নেইতে ছাইচিল কিন্তু তারা চুতি পাই নাই। আমি জধি Fulbright Scholarship পাই থাহলে আমি আবার বাংলাদেশে জাব আগামি বছররে। এতা হলে আমি খুব ভাল হব বাঙ্গালিতে। আমি ছাই যে আমি যখন বর হই আর ছাকরি করি, আমি কন কাজ বাংলাদেশের জনে করি, জাই কন ছত জিনেশ। থাহলে আমার ছেলেপেলে বাংলাদেশে কথা বুজবে আর বলতে পারবে। 


Adil's Thanksgiving Trip

আগামি শপ্তাহাই আমি আর আমার মা বাপ আর ভাই শব আমার বর ভাইএর বাশাই গেছে চলরাদতে। আমার বাশ্তি, শফিয়া, শাতে দেখা হএছে। আমার খুব ভাল লেগেছে। ষকালে আমার ভাই সফিয়াকে নেয়া আমাকে ঘুম থেকে উতাইত। শফিয়া খুব বরে উতেগাই কারন শে খুব তাতারি ঘুমাই। আমি ঘুম থেকে উতাই সফিয়ার শাতে কেলতাম। ষে খুব মিস্তে করে কেলাই, শবার শাতে কেলে আর বেশে কাদে না। বাছার যখন বেশে কাদে, আমার ভাল লাগে না। আগেরবার যখন সফিয়ার শাতে দেখা হএছে, শে হাতে পারত না আর থার জনে আমার বেশে কেলতে পারিনাই। কিন্তু আই বার আমরা বারি প্লায়গ্রউন্দে আর বরফের মদ্দে কেলছে। বারে খেলার পরে, আমরা বাশার আশ্তামা আর আমি দুপুরের নাস্তা কেতাম। শে প্রথম আমার মার দাআল-ভাত খেল আইবার। রাত্রের খাওার শমই শে আমারদের দিকে কালি থাকাইথ, থারপর অকে এক্তু দাআল-ভাত অর বাতিতে আর শে হাতদেয়া খেল। খাওার পরে শে এক্তু কেলত আর সঙ্গে সঙ্গে দুব দেয়া ঘুমতে জেত। সফিয়ার ঘরে অনেক অর আখান শবি ওয়াল্লে ছিল। আমি পরের দিনে অর শাতে “abstract art” আখাইছি। অর আখান আমি মিছিগানে নেয়াছি আর আমার ফ্রিদ্গে উতাইছি। আমার পুর শপ্তা খুব মজা লেগেছে সফিয়ার শাতে আর আশার শমই আমার খুব কারাপ লেগেছে। আবার স্প্রিঙ্গে দেখা হবে ইনশাল্লাহ। 


একজন লোকের বিপ্লব

বুঝেন কী সুন্দরের সম্বন্ধে আমার প্রস্তাব ।
এর বিদ্রোহের সময়ের জন্য দাঁড়ানো দরকার হয় না ।
আমি আপনাকে একজন লোকের বিপ্লব ঘটাতে ডাকছি ।
যেটা বিপ্লব সেটা শুধু বিপ্লবটা ঘটবে ।।
                  - রোবের্ট ফ্রস্ট, Build Soil, A Political Pastoral-তে

  আজকাল প্রতিদিন আমেরিকাতে কোন নির্বাচনপ্রার্থীকে ভোট দেওয়ার সম্বন্ধে অনেক কথা বলে। লোক ইরাকতে যুদ্ধের, স্বাস্হ্যকৃত্যকের, চাকরিগুলোর, সন্ত্রাসবাদীর, বেকানুন অভিবাসনের, পৃথিবীর প্রতিবেশের, আর পেট্রলের দামের সম্পর্কে চিন্তা করে। অনেক লোক বিশ্বাস করে যে যদি শুধু ঠিক নির্বাচনপ্রার্থীকে ভোট দিয় তাহলে আগের চেয়ে তার জীবন ভালো হবে।

  কল্পন করুন যে আপনি আমেরিকান লোক হয়ে প্রায় আমেরিকান লোকের মত বড় গাড়ি চালাতেন। আপনি জানতেন যে আপনার বড় গাড়ি পেট্রলের জন্য যুদ্ধ করান। আপনিও জানতেন যে পেট্রলের বেচা দিয়ে কিছু পেট্রলের লাভ সন্ত্রাসবাদীর জন্য টাকা করে, আর আপনার গাড়ির হাওয়া পৃথিবীর প্রতিবেশ খারাপ করায়। যদি আপনি যুদ্ধের, সন্ত্রাসবাদীর, আর পৃথিবীর প্রতিবেশের সম্বন্ধে চিন্তা করেন তাহলে সরকারের জন্য এসমস্যাগুলো মীমাংসা করতে দাঁড়ান কেন? আপনি নিজেকে মীমাংসা করতে পারেন। কম চালাবে বা চালাবে না! 

  কিন্তু আমেরিকান লোক চায় যে আমাদের জীবন আগের চেয়ে ভালো হবে। আমরা অসুবিধা হতে চাই না। আমরা কেউকে আমাদের হয়ে পৃথিবীর আর আমাদের দেশের সমস্যাগুলো সুরাহা করতে চাই। কিন্তু কে করতে পারে? আমরা নিজেকে ভাবি যে হয়ত আমেরিকানের সরকারের বা কিছু বেসরকারি দলনির্মাণ কাজ করতে পারে। আমরা কেউকে করতে চাই, কিন্তু আমরা নিজে করতে চাই না।

  এটা আসল সমস্যা। আমরা বিস্বাস করতে চাই যে সমস্যা আমাদের মনতে এত বড় থাকলে আমরা নিজেকে বলি যে লোকের দল মীমাংসা করার দরকার। আমরা বলি, “একা, আমি কী করতে পারি?” সমস্যাটা ভাবগত থাকলে আমাদের করার দরকার হয় না। অন্য লোক কাজ করলে আমরা কিছু টাকা দিতে পেরে এর সম্বন্ধে ভুলে যাই। আমাদের জীবন একা থাকে আর আমার চাল বদলানো দরকার হয় না। যে আমাদের জন্য এত সহজ করে সে অন্য লোককে করতে হয়।

  সবসময় দুটো প্রশ্ন সবথেকে ভালো। আপনি কেমন চাল বদলাবেন? কি করবেন? বদল করতে চাইলে আমরা নিজে করতে হব। এ একজন লোকের বিপ্লবের মানে। শুধু উপায়টা বদল হয় যদি আমরা কিছু জিনিস করি। অন্য লোককে আমাদের নৈতিক কাজ দিতে পারে না। একটা সরকার, একটা দল, একটা প্রতিষ্ঠান নীতি নেই। শুধু লোকের নীতি আছে, আর জখন আমরা নিজে নৈতিক কাজ করে তখন আমরা পরিবর্তন করে চাল বদলাই।

  এখন তিনটে উদাহরনের সম্বন্ধে ভাবুন - পরোপকারী দলনির্মাণ, সরকার আর একটা লোকের বিপ্লব। জখন একটা ঘুর্ণিবাত্যা বাংলাদেশে বানে ভেসে যাবার মত পড়ে তখন কী হচ্ছে?   

  যদি পরোপকারী দলনির্মাণ সাহায্য করে তাহলে লোককে উদ্ধার করাবে। কিছু লোক পরোপকারী দলনির্মাণ টাকা দিবে। অন্য লোক তারপর তাদের পক্ষে পরোপকার করবে। খাবার, মিঠে জল আর জামা-কাপড় দিবে।

  এ খারাপ নয়। এটা ভালো। এটা সত্যি যে প্রায় লোক এরকম সাহায্য নিয়। কিন্তু যে লোক টাকা দিল তাদের জীবন এরকম থাকে কি? কেমন চাল বদলাবে?

  যদি মাইক্রোসফটের বিল গাটেসের আর ওয়াল স্ট্রিটের ওয়ারেন বফেটের মত লোক ভাবে যে পরোপকারী দলনির্মাণকে দেওয়ার সবথেকে ভালো তাহলে আমাদের ভাবা উচিত যে এটা ভালো কারণ এরকম লোক মরে যাবে তখন তাদের ধন পরোপকারী দলনির্মাণকে নেবেন? অনেক লোক ভাবে যে এ ভালো। তারা কিছু রকম ঠিক।

  কিন্তু একটা প্রশ্ন থাকে। কিভাবে ধন নিছিল? আমরা যে লোক টাকা দিয় সে তার জীবনের আর কিভাবে টাকা করার সম্বন্ধে কথা বলতে পারি?

  পরোপকারী দলনির্মাণ ভালো। টাকার দেওয়া ভালো। কিন্তু আমাদের ভাবতে হয় না যে ভালো জীবনের জন্য টাকা বদল করতে পারে। যদি ঘুর্ণিবাত্যা বাংলাদেশে হয়, বাংলাদেশের লোকের যন্য টাকা দিয় আর বড় গাড়ি চালায় যে পৃথিবীর গরম করায় তাহলে আমরা কি ভাবতে হব? যে কিছু টাকা আমাদের খারাপ ব্যবহার জন্য বদল করে?

  হয়ত, কেউ উত্তর নেবে যে “হাওয়া শুধু একটা গাড়ি দিয়ে থাকলে পৃথিবীর গরম কী তফাত হবে”? কিন্তু জখন প্রতি লোক এরকম ভাবে তখন সব একসঙ্গে পৃথিবীর গরম হতে পারে। গাড়ি চালালে আপনি সমস্যাটা যোগ করেন।


  এখানে একটা কথা বিল গাটেসের আর ওয়ারেন বফেটের সম্বন্ধে বলা দরকার। যেভাবে একজন লোক এত লক্ষ লক্ষ টাকা জামাতে পারে সেভাবে কি এ চুরির রকম? আপনাদের কি চোরকে সুখ্যাতি করা উচিত কারণ জখন মরে গেল তখন টাকা পরোপকারী দলনির্মাণ দিবে? যদি লোক একটা হাত হাতে অনেক নিয়ে অন্য হাত হতে একটু দিয় তাহলে আমরা কি এর সম্বন্ধে বলতে হব?

  একাটা সরকারের সম্পর্কে বলা হতে পারে। এটা সত্যি যে সরকার কিছু ভালো জিনিস করতে পারে। কিন্তু সরকার শান্তি রক্ষা করতে পারে না কারণ সরকারের ক্ষমতা জোরাজুরির ওপর ভরসা করে। কত লোক মরে যায় যুদ্ধ দরুন? কত লোক জীবন নষ্ট হয় যে তার জীবন থাকে সে একটা সেনার জীবন দরুন। সরকার যত সমস্যাগুলো মীমাংসা করে তত সমস্যাগুলো এক আরো করায়। শুধু লোকের নীতি আছে। কিন্তু হয়ত কেউ কথা বলতে পারে যে যদি লোক সরকারের জন্য চাকরি করে তাহলে সরকার নীতি হতে পারে কি? তবু একটা সরকার নীতি হয় না। কেন?

  জখন আমলাতন্ত্র হয় তখন আমাদের নীতি নষ্ট করে। এখানে একটা ভালো উদাহরণ। যদি সেনা কিছু লোককে বধ করে তাহলে সেনা কাপ্তানকে তার ব্যবহারের জন্য নিন্দা করে। ও বলে, “কাপ্তান আমাকে আদেশ নেলেন”। তারপর কাপ্তান বলে, “নেতা আমাকে আদেশ নেলেন”। তারপর নেতা বলে, “আমি সেনা, কাপ্তান বা জনসাধারণ শুনলাম। যে তারা আমাকে করতে চায় সে আদেশ দিই”। 

  সবাই অন্য লোককে নিন্দা করে কিন্তু কেউ নিজেকে নিন্দা করে? যদি না গছায় তাহলে নীতি হতে পারে না। যদি আমরা কখনো নিজেকে না ভাবি – আমি কি করব? কিভাবে নিন্দা করা হল? – তাহলে আমরা আমাদের উপায় হারাই। অনেক সমস্যা দেশে আর পৃথিবীতে বেশী বড় যে এ সত্যি। কিন্তু আমরা ভাবা পারে না যে সরকার বা পরোপকারী দলনির্মাণ আমাদের সমস্যা মীমাংসা করতে হবে। শুধু আমরা নিজে আমাদের সমস্যা সুরাহা করতে পারি।

  কিন্তু আমরা কি করব? সবাই আমেরিকাতে থাকার মধ্যে প্রায় লোকের চাল বদলানো দরকার। আমি বিশ্বাস করি যে প্রথম আমরা নিজেকে চাল বদলাতে হয়ে পৃথিবীর বদল করাতে পারব। হ্যাঁ, টাকা আর আমাদের সময় দিতে পারে। কিন্তু যদি আমরা সত্যি অন্য লোক সাহায্য করতে চাই তাহলে তাদেরকে কষ্ট দিতে শেষ করে আমাদের জীবন সেরিয়ে সাহায্য করতে পারি।

  আবার কি করব? আমরা বুঝতে হবে এরকম অন্য লোক কষ্ট করি। প্রথম এ শেষ করি। কিন্তু এর মানে আমাদের চাল বদলাতে হয়ে আমাদের করা উচিত হবে কারণ যদি আপনি না থাকেন তাহলে কে থাকবে? যদি এখন না করে তাহলে কখন কবে? তারপর, আমরা টাকা দেওয়ার, সরকারের আর বেসরকারি দলনির্মানের সম্বন্ধে আর ভাবতে পারি।